মুরাদনগর হাসপাতালে অ্যাম্বুলেন্স ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বেঞ্চ প্রদান

বেশ কিছু দিন আগের কথা। কঙ্কালসার দেহ নিয়ে একজন রুগ্ন মানুষ যে ভাবে হামাঘুরি দিয়ে চলতো। সেভাবেই জোড়া তালি দিয়ে চলতো এই হাসপাতালের সেবা কার্য। হঠাৎ যেন জাদুর পরশ পেল মুরাদনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স। হাসপাতালটির বাহ্যিক পরিবেশ থেকে অবকাঠামোর নান্দনিক পরিবর্তন চোখে পরার মতো। আউট ডোর রুগির চিকিৎসা সেবার মান বৃদ্ধি পাওয়ায়, ইনডোরের রুগি এখন শহর মুখী হচ্ছে আগের চাইতে অনেক কম।

এরই মধ্যে সেবার মান অক্ষুন্ন রাখতে মুরাদনগরে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এম্বুলেন্স আনুষ্ঠানিক ভাবে হস্তান্তর করা হয়েছে। পাশাপাশি শিক্ষার মানোন্নয়নের জন্য উপজেলার ১৩টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বেঞ্চ প্রদান করা হয়েছে। স্থানীয় সরকার বিভাগের উপজেলা পরিচালন ও উন্নয়ন প্রকল্পের আওতায় অবকাঠামো উন্নয়ন উপ-প্রকল্পের এ কার্যক্রম বাস্তবায়ন করা হয়।

বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলা প্রাঙ্গনে কুমিল্লা-৩ মুরাদনগর আসনের এমপি ইউসুফ আবদুল্লাহ হারুন এসিএ প্রধান অতিথি হিসাবে অ্যাম্বুলেন্সের চাবি হস্তান্তরের মাধ্যমে অ্যাম্বুলেন্সের ও বেঞ্চ প্রদান কার্যক্রমের উদ্ধোধন করেন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন- জেলা আ’লীগের সভাপতি ম রুহুল আমিন, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আহসান আলম সরকার কিশোর, উপজেলা নির্বাহী অফিসার অভিষেক দাশ, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা যাচাই-বাছাই কমিটির সভাপতি মো: হানিফ সরকার, উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা নাজমুল আলম, উপজেলা প্রকৌশলী মো: জাহাঙ্গীর কবির,উপজেলা উন্নয়ন ফেসিলিলেটর মো: জাহিদুল ইসলাম।

আরো উপস্থিত ছিলেন- নবীপুর পশ্চিম ইউপি চেয়ারম্যান ভিপি জাকির হোসেন, চাপিতলা ইউপি চেয়ারম্যান আবু মুছা আল কবির, সদর ইউপি’র ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান মো: আক্তার হোসেন, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মো: সফিউল আলম তালুকদার, মুরাদনগর নূরুন্নাহার বালিকা বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সৈয়দা হাছিনা আক্তার প্রমুখ।

অ্যাম্বুলেন্সটি ২৭লাখ ৬২হাজার ৫শ’ টাকা ও ১৩০ জোড়া বেঞ্চ বাবৎ ১৩লাখ ৯২হাজার ২শত ৫৪টাকা ব্যায় হয়েছে।

নাজিম/বার্তাবাজার/না. সা.

Leave a Reply

Your email address will not be published.