October 1, 2022

কিশোরগঞ্জের ভৈরবে জামালপুরে সৎ মেয়েকে ধর্ষণের মামলায় বাবাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ । গ্রেফতারকৃত বাবাকে থানা হাজতে আটক করা হয়েছে । এদিকে ধর্ষিতাকে ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য ওয়ানষ্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে পাঠানো হবে বলে জানায় পুলিশ ।

ধর্ষিতার পরিবার ও এলাকাবাসি সূত্রে জানা যায়, জামালপুর মধ্যপাড়া গ্রামের আঃ রউফের পুত্র ৩টি বিয়ে করে । বর্তমানে তার ২জন স্ত্রী রয়েছে । ধর্ষিতা অব্ধলী (ছদ্ম নাম) তার সৎ মেয়ে । গত ১০ মার্চ সৎ বাবা মেয়েকে ঘরে একা পেয়ে জোর পূর্বক ধর্ষণ করে। এছাড়া ও গাজীপুরের টঙ্গীতে নিয়ে গিয়ে ও একটি বাড়িতে ধর্ষণ করেছে বলে অভিযোগ রয়েছে । তবে রুবেল তার আপন সহোদর ভাইয়ের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ আনলে পুলিশ তার ভাই রবিনকে আটক করে জিঞ্জাসাবাদ করে সত্যতা না পাওয়ায় তাকে ছেড়ে দেয় ।

পরে মেয়ের অভিযোগের ভিত্তিতে রুবেলকে গ্রেফতার করে পুলিশ । এ বিষয়ে রুবেলের মা বলেন, রবিনকে ফাসাতেঁ চেয়েছিল তার ভাই রুবেল । তবে রবিন এ কাজ করতে
পারেনা বলে তিনি দাবী করেন ।

এ বিষয়ে ভৈরব থানার ওসি গোলাম মোস্তফা জানান, ভিকটিমের অভিযোগের প্রেক্ষিতে সৎ বাবাকে গ্রেফতার করা হয়েছে এবং রবিনকে জিজ্ঞাসাবাদ করে ছেড়ে দেয়া হয়েছে । এ ঘটনায় ভিকটিম বাদী হয়ে ধর্ষণের অভিযোগে বাবার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন । ভিকটিমকে ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য কিশোরগঞ্জে ওয়ানষ্টপ ক্রাইসিস
সেন্টারে পাঠানো হবে।

জামাল/বার্তাবাজার/এম আই

Leave a Reply

Your email address will not be published.