বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণ, কিশোরী অন্তঃসত্ত্বা

ভোলার চরফ্যাসনের ওসমানগঞ্জ ইউনিয়নে রাশেদ নামের এক প্রেমিকের ধর্ষণে কিশোরী ৫ মাসের অন্তঃস্বত্তার ঘটনায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। শুক্রবার (১১ মার্চ) রাতে ভিক্টিম কিশোরী বাদী হয়ে প্রেমিককে আসামী করে চরফ্যাসন থানায় মামলাটি দায়ের করেছেন। রাতেই পুলিশ অভিযুক্ত যুবক রাশেদকে গ্রেপ্তার করে।

শনিবার (১২ মার্চ) সকালে আদালতে সোপর্দ করেছেন। গ্রেপ্তারকৃত যুবক আসলামপুর ইউনিয়নের আলীগাঁও গ্রামের আবদুস শহিদের ছেলে।

মামলা ও ভিক্টিম সুত্রে জানা যায়, পার্শ্ববতী আসলামপুর ইউনিয়নের যুবক রাশেদ একবছর যাবত ভিক্টিমর কিশোরীর ভাইয়ের সাথে রাজ মিস্ত্রির সহযোগী হিসেবে কাজ করতেন। ভাইয়ের সাথে কাজ করার কারণে কিশোরীর বাড়িতে আসা-যাওয়া করতো রাশেদ। প্রায় সময় ভিক্টিম কিশোরীর বাড়িতে রাত্রী যাপন করতেন। বাড়িতে আসা-যাওয়ার মধ্যে ২০২১ সনে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে।

প্রেমের প্রণয়ের সুত্র ধরে বিয়ের প্রলোভনে প্রেমিক রাশেদ তার সাথে শারিরিক সম্পর্কে লিপ্ত হন। প্রেমিকের ধর্ষণে কিশোরী ৫ মাসের অন্তঃস্বত্তা হয়ে পরেন। ভিক্টিম বিষয়টি প্রেমিক রাশেদকে জানালে সে তালবাহানা শুরু করেন। এবং তাকে বিয়ে করতে অস্বীকার করেন। এ ঘটনায় তিনি প্রেমিক রাশেদকে আসামী করে ধর্ষণের অভিযোগে মামলা দায়ের করেছেন।

চরফ্যাসন থানার ওসি মনির হোসেন মিয়া জানান, ভিক্টিমের দায়ের করা মামলায় অভিযুক্ত যুবক রাশেদকে গ্রেপ্তার করে শনিবার সকালে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।

আরিফ/বার্তাবাজার/এ.আর

Leave a Reply

Your email address will not be published.