বল তুলতে গিয়ে যমুনা নদীতে ডুবে দুই সহোদর নিখোঁজ

নিউজ ঝিনাইদহ: বগুড়ার সারিয়াকান্দি উপজেলার পাকুরিয়া চরে আনন্দ করতে গিয়ে পড়ে যাওয়া বল তুলতে গিয়ে যমুনা নদীতে ডুবে দুই সহোদর নিখোঁজ হয়েছে।

চোখের সামনে দুই ছেলে নদীতে হারিয়ে যাওয়ায় বাবা আতিকুর রহমান বাকরুদ্ধ হয়ে পড়েছেন।
শুক্রবার বেলা পৌনে ১২টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা তিন ঘণ্টা চেষ্টা করেও তাদের উদ্ধার করতে পারেনি। রাজশাহী ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরিদের খবর দেয়া হয়েছে। তারা এলে নদীতে নিখোঁজ দুই ভাইকে খোঁজা হবে।

এরা হল বগুড়া শহরের আটাপাড়া ওয়াপদা এলাকার হোমিও চিকিৎসক আতিকুর রহমানের ছেলে উপশহর শাহীন ক্যাডেট স্কুলের নবম শ্রেণির ছাত্র ওমর আলী (১৬) ও একই স্কুলের ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্র জাহিদ হাসান (১৩)।

প্রত্যক্ষদর্শী শহরের আটাপাড়া এলাকার মাসুম বিল্লাহ জানান, শুক্রবার সকালে তারা ১১ জন আনন্দ ভ্রমণে সারিয়াকান্দি উপজেলায় যান। অটোরিকশা থেকে নেমে যমুনা নদীর কালিতলা ঘাট থেকে নৌকায় পাকুরিয়া চরের দিকে রওনা হন।

বেলা পৌনে ১২টার দিকে নৌকা পাকুরিয়া চরে ভিড়ে। এ সময় তারা সবাই নৌকা থেকে নামার প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন। তাদের সঙ্গে ভ্রমণে আসা ডা. আতিকুর রহমানের দুই ছেলে ওমর ও জাহিদ আগেই বল নিয়ে নেমে খেলতে শুরু করে। বল নদীতে পড়লে সেটি আনতে দুই ভাই পানিতে নামে। এ সময় তারা দু’জন প্রবল স্রোতে ডুবে গিয়ে নিখোঁজ হয়।

সারিয়াকান্দি ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার আল আমিন জানান, বেলা ১২টা ৪৮ মিনিটে খবর পেয়ে তারা ঘটনাস্থলে যান। প্রায় তিন ঘণ্টা নদীতে খুঁজে দুই ভাইয়ের সন্ধান পাননি। বগুড়ায় ডুবুরি না থাকায় রাজশাহী ফায়ার স্টেশনে খবর দেয়া হয়েছে।

তিনি জানান, সেখানে থেকে বিকাল ৩টা ২০ মিনিটে ডুবুরি দল বগুড়ার দিকে রওনা হয়েছেন। তারা বেলা থাকলে পৌঁছলে নদীতে নেমে নিখোঁজ দুই ভাইকে খোঁজ করবেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here