October 1, 2022

মহামারি করোনাভাইরাসের প্রভাবে ভারতের রাজধানী দিল্লিতে এবার বেসরকারি প্রতিষ্ঠান বন্ধের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। বলা হয়েছে, প্রতিষ্ঠানগুলো যেন তাদের কর্মীদের বাড়ি থেকে কাজের অনুমতি দেয়। নতুন করোনা বিধির অধীনে এ নির্দেশ দিয়েছে দিল্লি বিপর্যয় ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষ (ডিডিএমএ)। খবর প্রকাশ করেছে এনডিটিভি।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, এতদিন পর্যন্ত ৫০ শতাংশ কর্মীদের অফিসে এসে কাজ করার অনুমতি ছিল। কিন্তু দিল্লিতে মহামারির প্রভাব ক্রমশ খারাপের দিকে যাচ্ছে। এমতাবস্থায় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে শতভাগ ওয়ার্ক ফ্রম হোমের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। তবে সরকারি প্রতিষ্ঠানগুলোতে আগের নির্দেশই বজায় থাকছে। অর্থাৎ ৫০ শতাংশ কর্মী অফিস করবে এবং বাকিরা ওয়ার্ক ফ্রম হোম।

তবে নতুন নিয়মের আওতাভুক্ত থাকবে না বেসরকারি ব্যাংক, জরুরি পরিষেবা প্রতিষ্ঠান, বীমা কোম্পানি, ফার্মা কোম্পানি, ক্ষুদ্রঋণ কোম্পানি, আইনজীবীদের অফিস এবং কুরিয়ার পরিষেবা। এর আগে গতকাল (১০ জানুয়ারি) রেস্টুরেন্ট ও বার বন্ধের নির্দেশ দেয় রাজ্য সরকার।

এদিকে, গতকাল সোমবার দিল্লিতে নতুন করে ১৯ হাজার করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে। যদিও তা আগের দিনের থেকেও কম। রবিবার এই সংখ্যাটা ছিল ২২ হাজার ৭৫১ জন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.