ঝিকরগাছায় জমিজমা সংক্রান্ত বিষয়ে চাচার হাতে ভাইপো নিহত

আফজাল হোসেন চাঁদ :

যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলার সদর ইউনিয়নের হাড়িয়াদেয়াড়া গ্রামস্থ জামসেদের মোড়ে জমিজমা সংক্রান্ত বিষয়ে চাচা আব্দুল মান্নান ওরফে মান্নু (৬৫) এর হাতে ভাইপো জুয়েল (৩৬) নিহত হয়েছে। নিহত জুয়েল হাড়িয়াদেয়াড়া গ্রামের আব্দুল হাকিমের ছেলে।
স্থানীয় ও নিহতের পরিবারের সূত্রে জানা যায়, ঝিকরগাছা থানাধীন হাড়িয়াদেয়াড়া গ্রামস্থ জামসেদের মোড়ের উপর বাবুলের চায়ের দোকানের সামনে পাঁকা রাস্তার উপর শুক্রবার (১৭ডিসেম্বর) তারিখ সকাল অনুমান ৭টার সময় পিতা ও চাচা আব্দুল মান্নান ওরফে মান্নু’র মধ্যে জমিজমা সংক্রান্ত বিষয়ের কথা কাটাকাটি হয়। তখন পিতাকে থামানোর জন্য জুয়েল হাজির হলে পূর্ব থেকে ওৎ পেতে থাকা চাচা ও চাচাতো ভাইদের আক্রমণের এক পর্যায়ে মেহুগনী গাছের ডাল দিয়ে নিহতের মাথায়, হাতে ও পায়ে এলোপাতাড়ি ভাবে আঘাত করে গুরুতর রক্তাক্ত জখম হওয়ার পরে স্থানীয়রা তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে যশোরের ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে রেফার্ড করেন। পরবর্তীতে ওখানেও তার অবস্থার অবনতি হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাৎক্ষণিকভাবে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় রেফার্ড করেন। ঢাকায় আগারগাঁও নিউরো সাইন্স হাসপাতাল পৌঁছালে কর্তব্যরত চিকিৎসক রাত্র অনুমান ৭টা ৪৫মিনিটের সময় আহতের পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে কর্তব্যরত ডাক্তার মৃত ঘোষণা করেন। আসামীর পিতা বাদি হয়ে আটজনকে আসামী করে ১৪৩/৩২৩/৩০৭/৩৭৯/৩০২/৩৪/১১৪ ধারা মোতাবেক থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলা নং ১২। তারিখ -১৮/১২/২০২১ইং। উল্লেখিত আসামীদ্বয়ের মধ্যে ৫নং আসামী মৃত আফছার আলী মোড়লের ছেলে শফিয়ার রহমান ওরফে শফিকে পুলিশ গ্রেফতার করেছে। এছাড়াও অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতারের জন্য থানা পুলিশ তাদের কার্যক্রম পরিচালনা করে যাচ্ছে। যশোর জেনারেল হাসপাতালের মর্গে লাশের ময়নাতদন্তের পর শনিবার বিকাল ৫টার সময় পারিবারিক ভাবে দাফন করা হয়েছে।
থানার অফিসার ইনচার্জ সুমন ভক্ত জানান, ঘটনাটি খুবই দুঃখজনক। এ ঘটনায় নিহতের পিতা ৮জনকে চিহ্নিত করে মামলা দায়ের করেছেন। মামলায় একজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। মামলার তদন্তের স্বার্থে এখন সম্পূর্ণ নাম ঘোষনা করা সম্ভব হচ্ছে না। আশাকরি অতিদ্রুত আমরা সকল আসামীদেরকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হবো।

Leave a Reply

Your email address will not be published.