চরফ্যাসনে আ’লীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষ, আহত ৪০

ভোলার চরফ্যাশনে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে আ’লীগের দুই পক্ষের দফায় দফায় সংঘর্ষে অন্তত ৪০ জন আহত হয়েছে। এদের মধ্যে ৩০ জনকে চরফ্যাশন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (৩ মে) সন্ধ্যায় উপজেলার দুলারহাট থানার নীলকমল ইউনিয়নের মুন্সিরহাট বাজারে বর্তমান ইউপি চেয়ারম্যান আলমগীর হাওলাদার ও সাবেক চেয়ারম্যান ইকবাল হোসেন লিখন গ্রুপের মধ্যে এ সংঘর্ষেও ঘটনা ঘটে। ঘন্টাব্যাপি চেষ্টায় পরিস্তিতি নিয়ন্ত্রণে এনে সেখানে বিপুল পরিমান পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, ঈদের দিন উভয় পক্ষ দলীয় নেতাকর্মীদের সাথে ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময় করছিলেন। এ সময় উভয় গ্রুপের কর্মী সর্মথকদেও মধ্যে বাক-বিতন্ডার এক পর্যায়ে তা সংঘর্ষে রুপ নেয়। এতে উভয় পক্ষের ৪০ জন আহত হয়। আহতদেও মধ্যে ৩০ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে দুলালহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোরাদ হোসেন বলেন, সংঘর্ষের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। তবে পরিস্ততি এখণ শান্ত রয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, আসন্ন ইউপি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে দীর্ঘদিন ধরে এ দুই গ্রুপের সাথে উত্তেজনা বিরাজ করছিলো।

আরিফ/বার্তাবাজার/এ.আর

Leave a Reply

Your email address will not be published.