ইউক্রেনের সুমিতে বিমান হামলা, শিশুসহ নিহত ১০

বিগত ১২ দিনের এই অভিযানে ইউক্রেনের বেশ কয়েকটি নগরী দখল করে নিয়েছে রুশ সেনারা। এতে দেশটির বিভিন্ন নগরীতে হতাহত হয়েছে বহু সংখ্যক মানুষ। সোমবার (৭ মার্চ) রাতে সুমি ও আশপাশের এলাকায় বিমান হামলা হয়েছে। এ ঘটনায় শিশুসহ ১০ জনের বেশি মানুষ নিহত হয়েছেন। এক প্রতিবেদনে এমন তথ্য জানিয়ে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি।

গতকাল ইউক্রেনের সুমি অঞ্চলের সামরিক প্রশাসনের প্রধান দিমিত্র ঝিভিৎস্কি ফেসবুকে এক ভিডিও বার্তায় বলেন, স্থানীয় সময় রাত ১১টায় উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় শহরে বিমান হামলা চালিয়েছে রাশিয়া। এ হামলায় ১০ জনের বেশি নিহত হয়েছেন বলে উল্লেখ করেন তিনি। ঝিভিৎস্কি আরও বলেন, দুর্ভাগ্যজনকভাবে নিহত ব্যক্তিদের মধ্যে শিশুও রয়েছে।

ভিডিও শেয়ার করা ফেসবুক পোস্টে ঝিভিৎস্কি লেখেন, ‘শিশুদের হত্যা করা হচ্ছে। এর জন্য আমরা কখনোই ক্ষমা করব না।’

গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে সামরিক অভিযান শুরু করে রাশিয়া। হামলার মধ্যেই সোমবার (৭ মার্চ) ইউক্রেন ও রাশিয়ার কর্মকর্তারা তৃতীয় দফা সমঝোতা বৈঠক করেন। সামান্য অগ্রগতির মধ্য দিয়ে এ বৈঠক শেষ হয়। আজ মঙ্গলবার (৮ মার্চ) চতুর্থ দফা সমঝোতা বৈঠক হওয়ার কথা। এর আগে দুই দফা বৈঠকেও দুই পক্ষের মধ্যে উল্লেখযোগ্য কোনো ফলাফল আসেনি।
এখন পর্যন্ত ইউক্রেনে ২৭ শিশুসহ ৪০৬ জন বেসামরিক নাগরিক নিহত হওয়ার তথ্য নিশ্চিত করেছে জাতিসংঘ। সংস্থাটির ভাষ্যমতে, এ সংখ্যা আরও অনেক বেশি হতে পারে। ইউক্রেনে রাশিয়ার হামলা শুরুর পর গত ১২ দিনে ইউক্রেন থেকে ১৭ লাখের বেশি মানুষ পাশের দেশগুলোতে আশ্রয় নিয়েছে বলে জাতিসংঘের শরণার্থীবিষয়ক সংস্থা ইউএনএইচসিআর জানিয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.