অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীর পেটে লাথি দিয়ে সন্তান মারলেন স্বামী!

যশোর বাঘারপাড়া উপজেলার মহিরন গ্রামে যৌতুকের টাকা না পেয়ে নুর জান্নাতি (২৪) নামে এক অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূর পেটে লাথি মেরে গর্ভের সন্তান নষ্ট করার অভিযোগ উঠেছে স্বামীর বিরুদ্ধে। গত রবিবার (৫ মার্চ) এ ঘটনাটি ঘটে।

অন্তঃসত্ত্বা নূর জান্নাতি যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আজ বুধবার (৯ মার্চ) অভিযুক্ত স্বামী তৌহিদুর রহমানকে আটক করেছে পুলিশ। জেলা গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের ওসি রুপন কুমার সরকার এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

অভিযোগে সুত্রে বলা হয়েছে , অসুস্থ হওয়ার পর প্রথমে গৃহবধূকে বাঘারপাড়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। অবস্থা আরও খারাপ হলে ডাক্তার যশোর জেনারেল হাসপাতালে রেফার করেন। যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি হলেও হাসপাতালে এসে তার স্বামী তৌহিদ তাকে প্রাণনাশের হুমকি দেয়।

যশোর জেনারেল হাসপাতালের জরুরি বিভাগের ডাক্তার আহম্মেদ তারেক শামস বলেন, ‘জান্নাতি মঙ্গলবার হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। তার শরীরের অবস্থা কিছুটা উন্নতির দিকে।’

নির্কটবর্তী থানার ওসি জানান, স্ত্রীকে নির্যাতনে অভিযোগে যশোর জেনারেল হাসপাতাল থেকে অভিযুক্ত তৌহিদকে আটক করা হয়েছে। এ ঘটনায় বাঘারপাড়া থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

বার্তাবাজার/জে আই

Leave a Reply

Your email address will not be published.