সেপ্টেম্বর ২৫, ২০২২

নোয়াখালীর হাতিয়ায় পূর্ণদিবস কর্ম বিরতি পালন করেন কালেক্টরেট সহকারী সমিতির সদস্যরা। এতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যলয় ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) কার্যলয়ে আসা সেবা প্রত্যাশীরা সেবা না পেয়ে ফিরে যেতে দেখা গেছে।

মঙ্গলবার (১মার্চ) সকালে উপজেলা ভূমি অফিসের প্রধান পটকের সামনে অবস্থান নিয়ে তারা এই কর্মসূচী পালন করেন। দিনব্যাপী চলা কর্মবিরতিতে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যলয় ও উপজেলা ভূমি অফিসের কর্মরত সহকারীরা।

সেবা প্রার্থী সাবেক সেনা সদস্য ফজলুল হক (৬৫) বলেন, জায়গা সংক্রান্ত কাজে ভূমি অফিসে এসেছি, কিন্তু অফিসের লোকজন আমাকে অন্যদিন আসার জন্য বলেন। প্রত্যন্ত সোনাদিয়া ইউনিয়ন থেকে বার বার আসা আমার জন্য কষ্টের বিষয়।

কর্মসূচীতে অংশ নেওয়া সহকারীরা জানান, বাংলাদেশ কালেক্টরেট সহকারী সমিতি দীর্ঘদিন থেকে বিভাগীয় কমিশনার, জেলা প্রশাসক, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) কার্যালয়ের কর্মরত অফিস সহকারীদের পদ, নাম পরিবর্তন ও বেতন গ্রেড বৃদ্ধির জন্য আন্দোলন করে আসছে।

আন্দোলনের এক পর্যায়ে প্রধানমন্ত্রী গত বছরের ২৪ জানুয়ারিতে সহকারীদের প্রস্তাবিত পদ, নাম পরিবর্তন ও বেতন গ্রেড উন্নতীকরণ প্রস্তাবটি অনুমোদন দেন। কিন্তু অর্থ মন্ত্রনালয় থেকে এখনো তা বাস্তবায়ন করা হচ্ছে না।

এ ব্যাপারে হাতিয়া উপজেলা ভূমি অফিসের অফিস সহকারী ও বাংলাদেশ কালেক্টরেট সহকারী সমিতি নোয়াখালী জেলা শাখার অর্থ সম্পাদক আব্দুল মুকিত বলেন, মঙ্গলবার থেকে সারা দেশে বাংলাদেশ কালেক্টরেট সহকারী সমিতির ব্যানারে কর্মবিরতি পালন করছে কর্মচারীরা।

দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত এই কর্মবিরতি অব্যাহত থাকবে বলে জানান তিনি।

জিল্লুর/বার্তাবাজার/এ.আর

Leave a Reply

Your email address will not be published.