রাশিয়ায় মানবাধিকার সংস্থার ওয়েবসাইট বন্ধের অভিযোগ

রাশিয়ায় রাজনৈতিক কারণে আটক হওয়া ব্যক্তিদের চিহ্নিতকরণ ও তাদের আইনি সহায়তা প্রদানকারী একটি মানবাধিকার সংস্থার ওয়েবসাইট বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে বলে দাবি সংস্থাটির।

সংস্থাটি দাবি করছে , রাশিয়ার ইন্টারনেট ও কমিউনিকেশন কর্তৃপক্ষ তাদের ওয়েবসাইটটি বন্ধ করে দিয়েছে। ওভিডি-ইনফো নামের সংস্থাটি ২০১১ সাল থেকে দেশটিতে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে আটক ব্যক্তিদের চিহ্নিত করা ও তাদের আইনি সহায়তা প্রদানে কাজ করছে?ওভিডি-ইনফো এক এক টুইট বার্তায় জানায়, ওয়েবসাইট বন্ধ করে দেওয়ার বিষয়ে তাদেরকে কিছু জানানো হয়নি এবং কেন বন্ধ করা হয়েছে সে বিষয়েও কোনো ব্যাখ্যা প্রদান করেনি কর্তৃপক্ষ। তাদেরকে শুধু এটুকু জানানো হয়েছে যে, আদালতের নির্দেশে ওয়েবসাইটটি বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

২০১১ সালে যাত্রা শুরুর পর থেকে বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছিল ওভিডি-ইনফো নামে বেসরকারি সংস্থাটি। দেশটির ২০১১ সালের নির্বাচনের পর তাদের কার্যক্রম জনপ্রিয়তা পায়। সে সময় তারা দেশটির নির্বাচনে কারচুপির অভিযোগে দেশ জুড়ে প্রতিবাদ সমাবেশ থেকে আটক হওয়া ব্যক্তিদের নিয়ে কাজ করছিল। গ্রহণযোগ্যতা থাকায় রাশিয়ার বিভিন্ন গণমাধ্যমও এ সংস্থাটির তথ্য সংবাদের উৎস হিসেবে ব্যবহার করত। এই প্রেক্ষিতে গত সেপ্টেম্বর মাসে সুইডেনের একটি আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থার পুরস্কার লাভ করে ওভিডি-ইনফো।

তবে সে সময় রাশিয়া সরকার সংস্থাটি ‘বিদেশি এজেন্টের’ হয়ে করছে বলে আখ্যা দেয়। উল্লেখ্য, রাশিয়াতে প্রতিনিয়তই গণমাধ্যম ও মানবাধিকার সংস্হাগুলোর ওপর সরকারের চাপ বাড়ছে? গত শুক্রবার দেশটির দুটি মানবাধিকার সংস্থাকে ‘বিদেশি এজেন্ট’ বলে ঘোষণা দেয় দেশটির বিচার মন্ত্রণালয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published.