সেপ্টেম্বর ২৪, ২০২২

গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বশেমুরবিপ্রবি) এক শিক্ষার্থীর গণধর্ষণের বিচার চেয়ে চতুর্থ দিনের মতো অবস্থান নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। পরে দুপুর ১২ঃ৩০ মিনিটের দিকে তারা একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন সড়ক ঘুরে প্রশাসনিক ভবনের সামনে এসে শেষ করেন।

গত ২৪ ফেব্রুয়ারি (বৃহস্পতিবার) স্থানীয়দের হামলার পর থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের সামনে অবস্থান নেয়। এর আগে প্রথম দিনে মহাসড়কে অবস্থান নিয়েছিলো তারা।

বৃহস্পতিবার বিকেলে ধর্ষণের বিচার চাইতে গিয়ে যে হামলা হয়েছে তার বিচার এবং ধর্ষণের বিচার নিশ্চিত করতেই এই টানা অবস্থান নেয় বিক্ষুপ্ত শিক্ষার্থীরা। চতুর্থ দিনের কর্মসূচি হিসেবে প্রেস ব্রিফিং, প্রতিকী ফাঁসি কার্যকর, বিক্ষোভ মিছিল এবং ধর্ষণ বিরোধী প্রতিবাদী নাটক ও সন্ধায় মশাল মিছিল এর পরিকল্পনা রয়েছে।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের লোকপ্রশাসন বিভাগের ছাত্র সৌরভ বিশ্বাস বলেন,” এই জঘন্য ঘটনার জন্য গত ৩ দিনের মতো আজ ও আমরা ধর্ষকদের সুষ্ঠু বিচারের দাবিতে এবং আমাদের সর্বোচ্চ সুরক্ষার দাবিতে নানা কর্মসূচি পালন করে যাচ্ছি এবং আমাদের কার্যক্রম চলবে যতক্ষণ পর্যন্ত আমাদের সবগুলো দাবি না পাই।

প্রসঙ্গত, বুধবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) রাত ৯টা ২৫ মিনিটের দিকে এ গণধর্ষণের ঘটনা ঘটে। যার বিচার চেয়ে শিক্ষার্থীরা প্রথমে সদর থানা এবং পরে মহাসড়ক অবরোধ করে। পরে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের উপর স্থানীয়রা হামলা চালিয়ে ভাইস চ্যান্সেলর সহ শিক্ষক শিক্ষার্থীদের আহত করে।

সাগর/বার্তাবাজার/এ.আর

Leave a Reply

Your email address will not be published.