ছাত্রী মেসে আপত্তিকর অবস্থায় ধরা খেলো ইবি ছাত্র

ইবি প্রতিনিধি-

প্রেমিকার জন্মদিন। সারপ্রাইজ দিতে প্রেমিকার মেসে কেক ও গিফট নিয়ে হাজির হন প্রেমিক। কিন্তু জন্মদিন পালন করতে গিয়ে আপত্তিকর অবস্থায় এলাকাবাসীর হাতে ধরা পড়লেন তিনি।

ঘটনাটি ঘটেছে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের(ইবি) প্রধান ফটকের সামনের এক ছাত্রী মেসে। ওই ছাত্রী ও তার কথিত প্রেমিক দুজনই ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের এনভায়রনমেন্টাল সায়েন্স অ্যান্ড জিওগ্রাফি বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী বলে জানা যায়। শুক্রবার (০৭ জানুয়ারী) রাত ১০টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

পরে স্থানীয় লোকজন ও বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের দুই নেতার উপস্থিতিতে ওই ছাত্রকে ছেড়ে দেওয়া হয়।

স্থানীয় লোকজন জানায়, রাতে মেয়েটির জন্মদিন পালন করতে ছাত্রীমেসে ছেলেটি প্রবেশ করে। ভবনের তৃতীয় তলায় জন্মদিনের কেক নিয়ে প্রবেশের সময় স্থানীয়দের সন্দেহ হয়। পরে পাশের বাসা থেকে তাদের আপত্তিকর অবস্থায় দেখে শোরগোল শুরু হয়। পরে ছাত্রটি কৌশলে বের হয়ে পার্শ্ববর্তী আরেক ছাত্রীমেস ‘ত্বকী প্যালেসের’ ছাদে লাফ দেয়। এ সময় স্থানীয়দের সহায়তায় তাকে ছাদ থেকে নামানো হয়। পরে জিজ্ঞাসাবাদে পুরো বিষয়টি স্বীকার করে সে।

এ সময় সেখানে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ নেতা বিপুল হোসেন খান ও হোসাইন মজুমদার উপস্থিত হন। বাড়িওয়ালা মোজাম্মেল হোসেন , বিশ্ববিদ্যালয়ের এক কর্মকর্তা ও ছাত্রলীগ নেতারা ওই ছাত্রকে উদ্ধার করেন।

স্থানীয়রা আরো জানান, বেশ কিছুদিন ধরে মেসগুলোতে এ ধরনের ঘটনা লক্ষ্য করেছেন। তবে হাতেনাতে কাউকে সেভাবে ধরতে পারেননি। মেসগুলোতে নির্দিষ্ট কোনো নিয়মনীতি না থাকায় তারা অবাধে মেলামেশার সুযোগ পাচ্ছে। প্রায়ই ছেলেদেরকে মেয়েদের মেসের সামনে রাত ১১টা পর্যন্ত দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যায়।

এলাকাবাসীর দাবি, এলাকার মেসগুলোতে এ ধরনের অশ্লীল কর্মকাণ্ড না ঘটুক। প্রতিটি মেসে প্রবেশের নির্দিষ্ট নিয়ম থাকা দরকার।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. জাহাঙ্গীর হোসেন জানান, কেউ ব্যক্তিগতভাবে কোনো অপরাধ করলে আমরা তার দায় নিতে পারি না। তবে এলাকাবাসীর সঙ্গে বসে মেসগুলোতে কিভাবে আরো নিরাপত্তা জোরদার করা যায় এবং কিছু নিয়ম কানুন প্রনয়ণের জন্য পদক্ষেপ নেওয়া হবে। তা ছাড়া বিশ্ববিদ্যালয়ের অভ্যন্তরে সন্ধ্যার পর থেকে প্রক্টরিয়াল বডির তদারকি আরো বৃদ্ধি করা হবে, যাতে সন্ধ্যার পর কোনো ছাত্রী হলের বাইরে অবস্থান করতে না পারে।’

Leave a Reply

Your email address will not be published.