আত্মসম্মান বলেও তো একটা জিনিস আছে: নান্নু

সাম্প্রতিক বছরগুলোতে দেশের ক্রিকেটের অন্যতম আলোচিত নাম জাতীয় দলের প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু। না, দল ভালো খেললে কিংবা জয় পেলে তার নাম সামনে আসে না। কেবল দল যখন খারাপ খেলে তখনই সমালোচনার অন্যতম কেন্দ্রবিন্দুতে পরিণত হন সাবেক এই অধিনায়ক।

অবশ্য, তাকে নিয়ে সমালোচনার যথেষ্ট কারণও রয়েছে। বিশেষ করে গত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ও ঘরের মাঠে পাকিস্তানের বিপক্ষে সদ্য সমাপ্ত সিরিজে দল নির্বাচন নিয়ে অনেক প্রশ্ন ওঠেছে। তাই নান্নুকে নিয়ে সমালোচনা হওয়াটাও স্বাভাবিক। তবে এতে মনে কষ্ট পান বলে জানিয়েছেন জাতীয় দলের প্রধান নির্বাচক।
সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে মিনহাজুল আবেদিন নান্নু বলেন, ‘অনেক সমালোচনা করে মানুষ। বুঝেও করে, না বুঝেও করে। ইদানিং ম্যাচ হারলেই এমনভাবে দোষারোপ শুরু করে এবং সবকিছুর ব্যাপারেই, এটা কিন্তু ঠিক না। কিছু কিছু জিনিস সবার জানা উচিৎ। বিশেষ করে যারা খেলে বা আগে খেলেছে তারা এই জিনিসটা জানে, আর যারা খেলে না তারাই বেশি সমালোচনা করে। আমি জাতীয় দলের অধিনায়ক ছিলাম, মানুষের সম্মানটা কিন্তু দেখানো উচিৎ। কিছু কিছু চ্যানেলে যথেষ্ট সমালোচনা করা হয়, আত্মসম্মান বলেও তো একটা জিনিস আছে। এই জিনিসটা ভালো না। মানুষকে কীভাবে সম্মান দিতে হয় সেটা শেখাতে হয় না।’

এখন একটু খারাপ খেললেই নির্বাচকদের পাশাপাশি সমালোচনার শিকার হন ক্রিকেটাররাও। তাই নান্নু অনুরোধ করেছেন যেন, অন্তত ক্রিকেটারদের সমালোচনা না করে তাদের মানসিকভাবে সমর্থন দেওয়া হয়।

মিনহাজুল আবেদিন নান্নু বলেন, ‘যারা খেলছে তারাই আমাদের সেরা খেলোয়াড়। তাই আমার একটাই অনুরোধ থাকবে- তাদের মানসিক ও সবরকমভাবে সাপোর্ট করা আমাদের দায়িত্ব। এমন সমালোচনা করবেন না, যা দেশের ক্রিকেটের ক্ষতি করে।’

Leave a Reply

Your email address will not be published.